অন্যায়ের প্রতিবাদ করায় রতন ভূইয়ার বিরুদ্ধে মিথ্যে অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিনিধি, নারায়ণগঞ্জ : শহরের ভূঁইয়া পাড়ায় আবু তাহের (৩৪) নামে এক ব্যক্তি বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের দাবিতে স্ত্রী মনিরা (২৩) কে প্রতিনিয়ত অত্যাচার নির্যাতন করে আসছিল। যতবারই অত্যাচার নির্যাতন করে ততবারই আবু তাহেরের অন্যায় অত্যাচারের প্রতিবাদ করের প্রতিবেশী ‍মুরব্বি রতন ভূইয়া নামে স্থানীয় মসজিদ কমিটির এক সদস্য। আর এ অপরাধে শনিবার (১১ জুলাই) ফতুল্লা মডেল থানায় রতন ভূইয়ার নামে একটি মিথ্যে অভিযোগ দায়ের করেছেন বলে দাবি করেছেন অভিযোগের বিবাদী রতন ভূইয়া সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিরা।

ঘটনাটি ঘটেছে ফতুল্লা থানাধীন পাইকপাড়া ভূঁইয়াপাড়া আল সাবাহ এলাকায়।

আবু তাহের তার দায়েরকৃত অভিযোগে বলেছেন, রতন ভূঁইয়ার কারনে বিগত দুই বছর ধরে তার কাছ থেকে তার স্ত্রী বিচ্ছিন্ন হয়ে আছে। আর এ বিরোধের জেরে শনিবার দুপুর দেড়টার দিকে অজ্ঞাত ৪/৫ জনকে সাথে নিয়ে প্রতিবেশী মুসা ভূইয়ার ছেলে রতন ভূইয়া তার বাড়িতে হামলা চালিয়ে তার ঘরের আসবাবপত্র ভাংচুর করে। এছাড়া তাকে এবং তার মা’কে মারধর করে। এ সময় বাঁধা দিলে তার গলা টিপে ধরে তাকে হত্যার চেষ্টা করে।

তবে স্থানীয় আল সাবাহ জামে মসজিদের সাধারণ সম্পাদক মাইনুদ্দিন ও কোষাদ্যক্ষ আব্দুর রবের কাছে জানতে চাইলে তারা বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনাই ঘটেনি। মুলত বিয়ের পর থেকেই আবু তাহের তার স্ত্রী’কে নির্যাতন করতো। প্রতিবারই এর প্রতিবাদ করতো রতন ভূইয়া। এসব বিষয় নিয়ে ইতিপূর্বে ৪/৫ বার আমরাই বিচার শালিস করেছি। তাছাড়া রতন ভূইয়া এলাকার সকলের কাছে সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে পরিচিতি। তার বিরুদ্ধে খারাপ কোনো রিপোর্ট থাকলে আমরা তাকে মসজিদ কমিটিতে রাখতাম না।

এদিকে অভিযোগকারী আবু তাহেরের শাশুড়ি ও স্ত্রী মনিরা বলেন, ‘এলাকার মসজিদ কমিটির অন্যান্য বিচারকদের মতোই রতন ভূইয়াও আমাদের পারিবারিক অভিভাবকের মতো বিভিন্ন সময় আবু তাহের এর সাথে আমাদের পারিবারিক কলহের সমাধানে চেষ্টা করে থাকেন। আমরাও যে কোনো সমস্যায় তার সরণাপন্ন হই। কিন্তু এই বিষয়টিকে কেন্দ্র করে ঈর্শ্বান্বিত হয়ে মাদকাসক্ত আবু তাহের তার মানহানি করতে এই ধরনের অভিযোগ দায়ের করেছে। মূলত আমাদের অভিভাবকশূণ্য করে দিয়ে আরও বেশি মানসিক অত্যাচার করতেই আবু তাহের থানায় এই ধরনের মিথ্যে অভিযোগ দায়ের করেছে।’

Chat Conversation End
Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment