জলাবদ্ধতায় নিমজ্জিত ডিএনডির ফতুল্লার লালপুর-পৌষপুকুরবাসী

নারায়ণগঞ্জ নিউজ ২৪ ডট কম :
জলাবদ্ধতায় নিমজ্জিত ডিএনডির ফতুল্লাঞ্চল পানি বন্দি হয়ে পড়েছে ফতুল্লার লালপুর – পৌষপুকুরপাড় এলাকার অর্ধ লক্ষাধিকেরও বেশী মানুষ।

রিক্সা,ভ্যান অটো রিক্সার পরিবর্তে চলছে নৌকা। ঘর থেকে বের হতে পারছেনা মানুষ। রাস্তা- ঘাটের পাশাপাশি বাসা বাড়ীতেও প্রবেশ করেছে পানি। কোনো কোনে বাসা বাড়ীতে প্রবেশ করেছে কোমর সমান পানি।

বছরের অধিকাংশ সময় পানির ডাইংয়ের পানিতে তলিয়ে থাকে পৌষারপুকুর পাড় এলাকার অধিকাংশ রাস্তা- ঘাট। ডাইংয়ের বিষাক্ত ক্যামিকেল মিশ্রিত বর্জ্য পানি মাড়িয়ে বছরের অধিকাংশ সময় দৈনন্দিন কাজ কর্ম করতে হয় পৌষাপুকুরবাসীর।

এমনিতেই নিচু এলাকা আর তাই অধিকাংশ সময় জলাবদ্ধতা থাকে এলাকাটি। তার উপর গত দুদিনের বৃস্টিতে ৮/১০ ফুট পানির নিচে তলিয়ে গেছে অধিকাংশ রাস্তা। বাসা- বাড়ীগুলোতে কোমর সমান পানি। বাসা থেকে বের হবার নেই কোনো উপক্রম। গত দু দিন ধরে চলছে নৌকা। নৌকা হয়ে উঠেছে পৌষাপুকুরবাসীর চলাচলে বর্তমান সময়ের প্রধান ভরসা।

লালপুর পৌষাপুকরপাড় এলাকার বাসিন্দা আসলাম হোসেন জানান,এমনিতেই পৌষাপুকুরপাড় নিচু এলাকা। বেশীর ভাগ সময় পানির নিচে তলিয়ে থাকে রাস্তা।গত দুদিনের বৃষ্টিতে রাস্তার পাশাপাশি বাসাবড়ী তলিয়ে গেছে পানিতে। বাসা থেকে বের হতে পারছেন না।আজ (বুধবার) যেতে পারেননি নিজ কর্মস্থলে। নৌকা দিয়ে যাতায়াত করতে হচ্ছে মানুষকে। তিনি আরো বলেন বৃস্টির পানিতে খালপূর্ণ হয়ে উপচে পরা পানি তাদের এলাকায় প্রবেশ করেছে।

পৌষাপুকুরপাড় এলাকার বাসিন্দা ছাত্রলীগ নেতা মেহেদী হাসান জুয়েল জানান, পানি নিস্কাসনে অপরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থা,নীচু এলাকা ও ডাইয়েংর পানির কারনে বছরের বেশীর ভাগ সময় তাদের এলাকার রাস্তা-ঘাট পানির নিচে তলিয়ে থাকে। আর বর্ষা মৌসুমে রাস্তায় হাটু সমান বা তারও বেশী পরিমান পানি সব সৃয় বিরাজমান থাকে। ফলে তাদের কে বছরের অধিকাংশ সময় জলাবদ্ধতার মাঝে ডাইংয়ের ক্যামিকেল মিশ্রিত পানি দিয়ে তাদেরকে চলাচল করতে হয়। গত কয়েকদিনের বৃস্টিতে পানি এলাকার প্রতিটি রাস্তার অলিগলিতে কোথাও কোমর সমান পানি কোথাও ৮/১০ ফুটেরও বেশী পানিতে তলিয়ে আছে। বাসা-বাড়ীতে ও পানি প্রবেশ করেছে। নৌকা দিয়ে তাদেরকে এখন চলাচল করতে হচ্ছে। নৌকায় হয়ে উঠেছে তাদের বর্তমান সময়ের প্রধান ভরসা।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment