সোনারগাঁয়ে দুই বাসের রেসে প্রাণ গেল তিন পথচারীর

 

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে বাসের ধাক্কায় তিন পথচারী নিহত হয়েছে। দুই বাসের মধ্যে আগে যাওয়া নিয়ে প্রতিযোগিতার এক পর্যায়ে একটি বাসের ধাক্কায় তারা প্রাণ হারান। গতকাল শুক্রবার সকালে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কাঁচপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন-কাঁচপুর রায়েরটেক এলাকার ফজল করিমের ছেলে আবু বকর সিদ্দিক (২০), রংপুরের কোতয়ালী থানার শ্যামপুর গ্রামের প্রয়াত মুকুলের ছেলে ওহিদুল (৩২) ও চাঁদপুরের উত্তর মতলব থানার উদমদি গ্রামের প্রয়াত নকুল সরকারের ছেলে সজীব সরকার (২৮)। ওহিদুল ও সজীব সরকার কাঁচপুর এলাকায় ভাড়া থাকতেন। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চট্টগ্রামগামী লেনে শুক্রবার সকালে আগে যাওয়া নিয়ে প্রতিযোগিতায় লিপ্ত হয় বোরাক পরিবহন ও হোমনা সুপার সার্ভিসের দুটি বাস। এক পর্যায়ে বোরাক পরিবহনের বাসটি কাঁচপুর ওভারব্রিজের ঢালুতে থামিয়ে যাত্রী ওঠানামা করছিল। এ সময় হঠাৎ হোমনা সুপার সার্ভিসের বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বোরাক পরিবহনের বাসের পেছন দিকে ধাক্কা দেয়। এতে রাস্তা পারাপারের জন্য বোরাক পরিবহনের বাসটির পেছনে থাকা তিন পথচারী গুরুতর আহত হয়।

খবর পেয়ে কাঁচপুর হাইওয়ে থানা পুলিশ আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন। এলাকাবাসী বাস দুটিকে আটক করলেও চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কাঁচপুর হাইওয়ে থানার ওসি মনিরুজ্জামান জানান, বাস দুটি আটক করা হয়েছে। চালক ও হেলপার পলাতক। তাদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment