হেফাজতের পদ ছাড়লেন নারায়ণগঞ্জ আমীর মাওলানা আবদুল আউয়াল

নারায়ণগজ্ঞ নিউজ ২৪ ডট কম : পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমীর ও নারায়ণগঞ্জ জেলা কমিটির সভাপতি মাওলানা আব্দুল আউয়াল৷

মঙ্গলবার দুপুরে পদত্যাগের ঘোষণার বিষয়টি মুঠোফোনে নিশ্চিত করেছেন খোদ মাওলানা আব্দুল আউয়াল৷
এর আগে সোমবার রাতে ডিআইটির রেলওয়ে কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে মুসুল্লিদের সামনে এমন ঘোষণা দেন৷ দলীয় নেতা-কর্মীরা তাঁর নির্দেশনা মানছেন না বলেও অভিযোগ তোলেন তিনি৷

মাওলানা আবদুল আউয়ালের পদত্যাগের ঘোষনা নিয়ে তার ভিডিও ভাইরাল হয়।

মাওলানা আবদুল আউয়াল বলেন, ‘আমি সকল মুসুল্লির সামনে জানিয়ে দিয়েছি যে, আমি কোনো নেতৃত্বে থাকবো না৷ আমার নেতৃত্ব না মেনে কর্মীরা কার্যক্রম চালায় সুতরাং নেতৃত্বে থাকার কোনো কারণ নেই৷

গতকাল কেন্দ্রীয় দোয়া কর্মসূচি ডিআইটি মসজিদে করার কথা থাকলেও দলের কিছু নেতারা মিলে দেওভোগ মাদরাসায় সে আয়োজন করেছেন৷ আমার কথা কেউ শোনে না৷ আমি আর কোনো দলে থাকতে চাই না৷ হেফাজত, ওলামা পরিষদ সবকিছু থেকে পদত্যাগ করেছি৷ মৌখিকভাবে কেন্দ্রে তা জানিয়েছি৷ তারা লিখিত চাইলে তাও দেবো৷

হেফাজতের নারায়ণগঞ্জ মহানগর সভাপতি মাওলানা ফেরদৌস আহমেদ মঙ্গলবার বিকেলে জানান, জেলা আমীর যে প্রক্রিয়ায় পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন এটা সঠিক পদ্ধতি নয়।তিনি পদত্যাগ পত্র কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের কাছে জমা দিবেনএটাই নিয়ম।

তিনি অভিযোগ করেন,মাওলানা আবদুল আউয়াল নেতৃত্ব দেওয়া যোগ্যতা হারিয়েছেন। তিনি পদে থেকে সঠিক নেতৃত্ব দিতে ব্যর্থ হয়েছেন যার কারনে নেতা কর্মীরা তাকে চাচ্ছে না।

তিনি বলেন,কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্ত মোতাবেক রোববার সকাল সন্ধা হরতালের ডাক দিয়েছে অথচ মাওলানা আবদুল আউয়াল সকাল ১০ বাজে ঘোষণা দেন হরতাল শেষ। তার এমন ঘোষণা অযোগ্যতা প্রমান করে।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment